স্ত্রী ও শ্যালিকাকে ভারতে নিয়ে বিক্রি করে দিয়েছেন স্বামী

বেশি বেতনে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে স্ত্রী ও শ্যালিকাকে ভারতে নিয়ে বিক্রি করে দিয়েছেন স্বামী ইউসুফ মিয়া ও তার সহযোগী রাব্বিল শেখ। শুক্রবার (১১ জুন) রাতে র‌্যাব-১৪ অভিযান চালিয়ে ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলার বালিহাটা থেকে ইউসুফ এবং গাজীপুরের শ্রীপুর থেকে রাব্বিল শেখকে গ্রেপ্তার করে।

এ সময় তাদের কাছ থেকে নগদ টাকা, স্বর্ণালংকার, বেশ কয়েকটি মোবাইল সিম ও এটিএম কার্ড উদ্ধার করা হয়। শনিবার (১২ জুন) দুপুরে সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাব-১৪-এর অধিনায়ক লে. কর্নেল আবু নাঈম মো. তালাত এসব তথ্য জানান। সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেপ্তারকৃতরা মানব পাচারে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছেন।

স্ত্রী কুলসুমা আক্তার (২২) ও শ্যালিকা সুমাইয়া আক্তারকে (১৯) মানব পাচারকারীদের সহায়তায় ভারতে বিক্রি করে দেন ইউসুফ। তিনি ও তার সহযোগীরা দুই বোনকে শ্রীপুরের জৈনা বাজার থেকে ভারতে নিয়ে বিক্রি করে দেন। পরে পাচারকারীদের কাছ থেকে কৌশলে পালিয়ে বড় বোন বিএসএফের হাতে এবং ছোট বোন পুলিশের হাতে আটক হয়ে শিয়ালদহের একটি সেফহোমে আশ্রয় নেন।

দুই বোনের বাড়ি ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ের রসুলপুরে। ওই গ্রামের আজিজুল হকের মেয়ে তারা। গত ৫ জুন মেয়েদের পাচার করার অভিযোগে শ্রীপুর থানায় মামলা করেন তাদের বাবা আজিজ। র‌্যাব-১৪-এর অধিনায়ক জানান, প্রাথমিক তদন্তে পাচারকারীদের অন্যতম হোতা রাব্বিল শেখের বিপুল পরিমাণ অর্থ লেনদেনের সংশ্লিষ্টতা পাওয়া যায়,

যা এই মানব পাচারের সঙ্গে সম্পৃক্ত। ভুক্তভোগীদের দেশে ফিরিয়ে আনতে র‌্যাবসহ অন্যান্য আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী ও সরকারি সংস্থার প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। এ ছাড়া মানব পাচারকারী চক্রের অন্য সদস্যদের গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত থাকবে।

Check Also

দেশে ২৪ ঘন্টায় করোনায় মৃ,ত্যুর সর্বো,চ্চ রেকর্ড

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভা ইরাসে আক্রান্ত হয়ে ২৬৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মোট …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *